বিশ্বমোড়লেরা দুমুখো নীতিতে বিশ্বাস করে: প্রধানমন্ত্রী

টিবিটি ডেস্ক
টিবিটি রিপোর্ট
প্রকাশিত: ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ১২:৪৯ এএম

ফিলিস্তিনিদের ওপর নির্বিচার হামলার সমালোচনা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি সেই সঙ্গে ‘বিশ্বমোড়লদের দুমুখো নীতিরও’ সমালোচনা করেছেন। আজ শুক্রবার গণভবনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন শেখ হাসিনা।

গাজায় চলমান যুদ্ধ প্রসঙ্গে শেখ হাসিনা বলেন, ‘গাজা ও ফিলিস্তিনে যা হচ্ছে, তা অমানবিক কাজ। মানবতাবিরোধী কাজ। হাসপাতালগুলোর ওপর আক্রমণ। বাচ্চাদের কী দুরবস্থা।’

শেখ হাসিনা আরও বলেন, ‘আমরা তো দেখছি, বিশ্বমোড়লেরা দুমুখো নীতিতে বিশ্বাস করে। প্যালেস্টাইনের সমস্ত জমি দখল করে ফেলছে, সেটা আগ্রাসন নয়, ইউক্রেনেরটা আগ্রাসন।’

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জিতে টানা চতুর্থবারের মতো সরকার গঠনের পর প্রথমবারের মতো সংবাদ সম্মেলনে এলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজ সকাল সাড়ে ১০টার দিকে এ সংবাদ সম্মেলন শুরু হয়। সম্প্রতি জার্মানির মিউনিখে নিরাপত্তা সম্মেলনে অংশ নেওয়ার অভিজ্ঞতা জানাতেই প্রধানমন্ত্রীর এ সংবাদ সম্মেলন।

সংবাদ সম্মেলনে এক প্রশ্নের জবাবে শেখ হাসিনা বলেন, ‘আমরা যুদ্ধ চাই না। যুদ্ধকালীন যে কষ্ট, আমরা এর ভুক্তভোগী। আমি নিজেই তার ভুক্তভোগী।’

শেখ হাসিনা বলেন, বিশ্বটা গ্লোবাল ভিলেজ। একজনের ওপর আরেকজনের নির্ভরতা আছে।  যুদ্ধ এক জায়গায় শুরু হলেও সেটা সেখানেই সীমাবদ্ধ থাকছে না। এর প্রভাব পড়ছে সারা বিশ্বে। কষ্ট পাচ্ছে সারা বিশ্বের মানুষ। সবাই মূল্যস্ফীতির যন্ত্রণা পাচ্ছে। ইউরোপ, আমেরিকা—সব দেশই ভোগ করছে যুদ্ধের যন্ত্রণা।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘আমরা রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়েছি। মিয়ানমারের সঙ্গে যুদ্ধে জড়াইনি। আলোচনা করে যাচ্ছি ধৈর্য ধরে। সবাইকে বলেছি, শান্ত মাথায় সবকিছু মোকাবিলা করতে হবে। আর এ জন্যই দক্ষিণ এশিয়ায় সবচেয়ে সুস্থ অবস্থায় আছি আমরা।’